Dreamy Media BD

৭ দিনে ব্রণ  দূর করার উপায়

৭ দিনে ব্রণ  দূর করার উপায়

৭ দিনে ব্রণ  দূর করার উপায়

সুন্দর দাগহীন চেহারা কে না চায়। সব মানুষই চায় লোকজন তাকে সুন্দর ও ফিটফাট বলুক। কিন্তু আমাদের এই সুন্দর চেহারার মধ্যে বাধা হয়ে দাঁড়ায় ব্রণ। ব্রণ মুখের মধ্যে কালো দাগ, ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র গর্ত ইত্যাদি তৈরি করে। ব্রণ যে শুধু নারীদের সমস্যা তা নয়। ছেলেদেরও এই সমস্যা দেখা যায়।শতকরা ৮০ ভাগ ক্ষেত্রেই মানুষের ব্রণ হওয়ার কারণ হলো জেনেটিক বা বংশগত। ব্রণের সমস্যা দীর্ঘমেয়াদী হয়ে থাকে বিশেষ করে যখন ত্বকের মৃত কোষগুলি এবং ত্বকে থাকা তেলগুলো লোমকূপে আটকে যায়। এরূপ অবস্থায় সাধারণ বৈশিষ্ট্য গুলোর মধ্যে রয়েছে, ব্রণ,হোয়াইটহেডস, ব্ল্যাক হেডস, তৈলাক্ত ত্বক ইত্যাদি। এগুলো সাধারণত মুখ, বুকের উপরের অংশ, এবং পিঠসহ শরীরের যে সমস্ত জায়গাতে উচ্চ সংখ্যক তেল গ্রন্থি থাকে সেখানকার ত্বককে প্রভাবিত করে। এই জন্য ব্রণ নিয়ে দুশ্চিন্তার অভাব নেই। ব্রণ নিরাময়ে আমরা বাজার থেকে বিভিন্ন কসমেটিক জাতীয় প্রোডাক্ট কিনে এনে ব্যবহার করে থাকে যার ফলাফল খুব বেশি ভালো হয় না। বরং এইসব প্রোডাক্ট এর পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার হলে আরো অনেক ব্রণ বের হয়। যার ফলে আরও বেশি দুশ্চিন্তায় পড়তে হয়। আজ আমরা এই আর্টিকেলে জানতে পারবো ৭ দিনে কিভাবে ব্রণ দূর করা সম্ভব। তাই চলুন দেরি না করে আর্টিকেলটি শুরু করা যাক:

ব্রণ কি?

ব্রণ হচ্ছে একটি ত্বকের অবস্থা যেখানে মৃত ত্বকের কোষ এবং অতিরিক্ত ত্বকের তেল ছিদ্রে আটকে যায়। অধিকাংশ ক্ষেত্রেই এটি চুলের ফলিকলের গোড়ায় তেল গ্রন্থি জড়িত প্রদাহজনক এবং অ-প্রদাহজনক   ত্বকের ক্ষত সৃষ্টি করতে পারে। যার মধ্যে রয়েছে পিম্পল,হোয়াইটহেডস, ব্ল্যাকহেডস, পুঁজ, সিস্ট ইত্যাদি।  ব্রণ সব বয়সের মানুষেরই হতে পারে, তবে এটি কিশোর,কিশোরীদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি দেখা যায়। তীব্রতার উপর নির্ভর করে, ব্রণ মানসিক কষ্টের কারণ হতে পারে। অনেক সময় ত্বকে স্থায়ী দাগও হতে পারে।

ব্রণ হওয়ার কারণ 

মানুষের ত্বকের নীচের তেল গ্রন্থিগুলি ত্বকের ছিদ্রগুলির সাথে যুক্ত থাকে। এই গ্রন্থিগুলি সিবাম নামে একটি তৈলাক্ত তরল তৈরি করে।  ছিদ্রের মাধ্যমে এই তরল ত্বকের মৃত কোষকে ত্বকের পৃষ্ঠে নিয়ে আসে। এই ত্বকের ছিদ্রগুলো যদি কোনো কারণে বন্ধ হয়ে যায়  ব্রণ দেখা দিতে শুরু করে। এছাড়াও ত্বকে প্রোপিওনিব্যাকটেরিয়াম ব্রণ নামক ব্যাকটেরিয়ার আক্রমণ ব্রণ হওয়ার অন্যতম কারণ। ব্রণ হওয়ার কারণ গুলি হচ্ছে:

হরমোনের কারণে ব্রণ হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। এন্ড্রোজেনের মাত্রা বৃদ্ধি ফলে সাধারণত ব্রণ হয়। আমাদের শরীরে বয়ঃসন্ধির সাথে সাথে এই হরমোনের মাত্রা বৃদ্ধি পায় এবং মহিলাদের মধ্যে ইস্ট্রোজেনে রূপান্তরিত হয়।

বাড়তে থাকা এই এন্ড্রোজেনের মাত্রা ত্বকের নীচে তেল গ্রন্থিগুলির বৃদ্ধি ঘটায়।আর এই বর্ধিত গ্রন্থিগুলি প্রচুর পরিমাণে সিবাম তৈরি করে যা ত্বকের ছিদ্রগুলির দেয়াল ভেঙে দিতে পারে। এতে ব্যাকটেরিয়া সংক্রমণ এবং ব্রণ ব্রেকআউট হতে পারে।

অধিকাংশ নারী-পুরুষ ব্রণের সমস্যায় ভোগেন। বিশেষ করে অল্প বয়সে  ব্রণের সমস্যা বেশি দেখা যায়। অতিরিক্ত ব্রণের কারণে অনেকের মুখে অনেক কালো দাগ পড়ে।

আবার দেখা যায় কখনও কখনও ব্রণ সেরে যাওয়ার পরও মুখের ওই জায়গাগুলো গর্ত হয়ে যায়। এতে মুখের সৌন্দর্য অনেকাংশে কমে যায়। এইজন্য সবাই ব্রণের দাগ ও ব্রণ দূর করার জন্য এত মরিয়া হয়ে থাকে।

ব্রণের প্রকারভেদ

Pustules ব্রণ:

এই ব্রণ ত্বকের পৃষ্ঠে স্পষ্টভাবে দৃশ্যমান। এগুলোতে গোড়ায় লাল এবং উপরে পুঁজ হয়।

হোয়াইটহেডস ব্রণঃএই ব্রণ ত্বকের নীচে অবস্থিত এবং অন্যান্য ব্রণের তুলনায় আকারে অপেক্ষাকৃত ছোট।

ব্ল্যাকহেডস ব্রণ:

এই ব্রণ স্পষ্টভাবে দৃশ্যমান।ব্রণগুলি কালো এবং ত্বকের পৃষ্ঠে সহজেই দৃশ্যমান।

নোডুলস ব্রণঃ এই ব্রণ ত্বকের পৃষ্ঠে স্পষ্টভাবে দৃশ্যমান। এগুলি শক্ত,বড়, বেদনাদায়ক পিম্পল যা ত্বকের গভীরে প্রসারিত হয়।

প্যাপিউলস ব্রণ:

এই ব্রণগুলো ছোট, সাধারণত গোলাপী দাগ, এবং ত্বকের পৃষ্ঠে দৃশ্যমান।

সিস্ট ব্রণঃ এই ব্রণগুলো ত্বকের পৃষ্ঠে স্পষ্টভাবে দৃশ্যমান এবং বেদনাদায়ক এবং পুঁজ দিয়ে ভরা। সিস্ট ত্বকের দাগের অন্যতম কারণ

৭ দিনে ব্রণ দূর করার উপায়

৭ দিনে ব্রণ দূর করার উপায় খুব একটা কঠিন নয়। আপনি চাইলে খুব সহজে অল্প কিছু নিয়ম মেনে মাত্র সাত দিনেই আপনার মুখের ব্রণ দূর করতে পারবেন। তবে যে নিয়মগুলো বলা হবে সেই নিয়মগুলো আপনাকে নিয়মিত অনুসরণ করতে হবে। তাহলে চলুন জেনে নেই ৭ দিনে ব্রণ দূর করার উপায় গুলো সম্পর্কে:

১)নিয়মিত আপনার মুখ পরিষ্কার করুন

মুখের মধ্যে থাকা তেল গ্রন্থিগুলি সারা দিন সক্রিয় থাকে এবং এগুলো মেকআপ, ময়লাএবং দূষণের সাথে আটকে যেতে পারে। এর ফলে ত্বকের ছিদ্র বন্ধ  হয়ে যায়  কারণে ব্রণ হতে পারে। এজন্য নিয়মিত মুখ পরিষ্কার করুন। বয়ঃসন্ধির সময়ে  বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর  বা ব্যায়াম, এবং খেলাধুলার পর মুখ ধোয়া খুবই গুরুত্বপূর্ণ । অধিকাংশ ত্বকের ডাক্তার বা বিউটিশিয়ানরা সুপারিশ করেন যে আপনি অন্তত একটি ক্লিনজিং তোয়ালে ব্যবহার করে নিয়মিত আপনার মুখ পরিষ্কার করার জন্য  এতে ব্রণের প্রবণতা অনেকাংশেই কমবে।

২)স্যালিসিলিক অ্যাসিড সমৃদ্ধ একটি ক্লিনজার ব্যবহার করুন

স্যালিসিলিক অ্যাসিড ত্বকের পৃষ্ঠ থেকে মৃত কোষ এবং অতিরিক্ত তেল অপসারণ করতে সাহায্য করে।এটি ব্রণ বা ব্ল্যাকহেডস থেকে মুক্তি পেতে খুব গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পারে। । অন্যদিকে ভিটামিন এ ব্ল্যাকহেডস দূর করতে ভূমিকা রাখে। তাই ভালো ফলাফল পেতে স্যালিসিলিক অ্যাসিডের সঙ্গে ভিটামিন ‘এ’ ব্যবহার করন। ভিটামিন “এ” পাইপ ক্লিনারের মতো কাজ করে, যার কারণে তেল আটকে যায় না। অন্যদিকে, স্যালিসিলিক অ্যাসিড ত্বক থেকে ক্ষতিকারক উপাদানগুলি সরিয়ে ব্রণ ব্রেকআউট মুক্ত রাখতে সাহায্য করে। সেই সাথে ত্বকের অবাঞ্ছিত দাগ দূর করতেও সাহায্য করে।

৩)মুখ থেকে হাত দূরে রাখুন

প্রায় সকলেই  আমাদের আঙ্গুল বা নখ ব্যবহার করে মুখের ব্রণ বা ব্রণ দূর করার চেষ্টা করি। আমরা ভাবি এমনটা করলে  সেই বিশেষ ব্রণ থেকে মুক্তি পাওয়ার দ্রুত মুক্তি পাওয়া যাবে। কিন্তু এটি সম্পূর্ণ ভুল ধারণা।বেশিরভাগ চর্মরোগ বিশেষজ্ঞ মনে করেন যে আপনার হাত বা নখ দিয়ে ব্রণ বাছাই করার চেষ্টা করলে নিরাময় হতে বেশি সময় লাগে। হাত বা নখ দিয়ে ব্রণ দূর করার চেষ্টা করলে মুখে দাগ পড়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে। এর মাধ্যমে সারা ত্বকে ব্রণ ছড়িয়ে পড়ার সম্ভাবনা থাকে। এইজন্য কখনোই হাত বা নখ দিয়ে ব্রণ দূর করার চেষ্টা করবেন না।

৪)বরফ ব্যবহার

বিরক্তিকর এবং বেদনাদায়ক ব্রণ নিয়ন্ত্রণ করার সেরা উপায়গুলির মধ্যে একটি হল বরফ প্রয়োগ করা। বড় ব্যবহারের ফলে ব্রণ ছড়াতে বাধা পায় এবং ধীরে ধীরে প্রকোপ কমে যায়। এজন্য একটি কাপড়ে কিছু বরফ মুড়িয়ে ব্রণের ওপর উপর ৩ থেকে ৪ মিনিট ধরে রাখুন। যদি বরফ দ্রুত গলে যায় তবে একটি প্লাস্টিকের স্যান্ডউইচ ব্যাগে কয়েকটি কিউব ফেলে দিন। ত্বককে প্রশমিত করতে এবং ফোলাভাব কমাতে সারা দিন কয়েকবার এই প্রক্রিয়াটি চালু রাখুন।

৫)মেকআপের সাথে সতর্ক থাকুন

মেকআপ জাতীয় সৌন্দর্য পণ্য প্রাপ্তবয়স্ক ব্রণের সবচেয়ে বড় একটি কারণ । আমাদের মুখের ত্বক খুবই সংবেদনশীল এবং খুব সামান্য কারণেই এখানে সমস্যা দেখা দেয়।  মেকআপ পণ্যগুলিতে এমন অনেক উপাদান থাকে যা আপনার ত্বকের জন্য ক্ষতিকারক, এবং বিভিন্ন সমস্যা সৃষ্টি করতে পারে। এই সমস্যাগুলোর মধ্যে একটি হচ্ছে ব্রণ। অনেকে আছে যারা মুখের ব্রণ লুকানোর জন্য বা সাময়িকভাবে ব্রণ দূর করার উপায় হিসাবে ভারী মেকআপ ব্যবহার করে থাকে। দুর্ভাগ্যবশত, ভারী মেকআপ করে সাময়িকভাবে ব্রণ আড়াল করতে পারলেও স্থায়ী ব্রণ ব্রেকআউট করতে পারে না। এইজন্য মেকআপ ব্যবহারে খুব সতর্ক থাকুন। সব সময় হালকা ধরনের মেকআপ ব্যবহার করার চেষ্টা করুন ।এবং ত্বকের জন্য বেশি উপকারী এমন উপাদান সমৃদ্ধ মেকআপ ব্যবহার করার চেষ্টা করুন।

সবশেষে

বয়ঃসন্ধিকাল থেকে শুরু করে  যে কোন বয়সের মানুষই ব্রণে আক্রান্ত হতে পারেন। মুখে ব্রণ উঠা এমন একটি সমস্যা যা  প্রায় প্রত্যেকেই জীবনের কোন না কোন সময়ে ভোগ করে থাকে। ব্রণ  যতটা না শারীরিক যন্ত্রণা দেয় এর চাইতে বেশী  মানসিক যন্ত্রণা দেয়। আজকের এই আর্টিকেল কিভাবে ব্রণ দূর করা যায় সেই সম্পর্কে আপনাদের ধারণা দিয়েছি। আশা করি আজকের আর্টিকেলটি থেকে আপনি কিছুটা হলে উপকৃত হবেন। আমাদের সাথে থাকার জন্য ধন্যবাদ।

Also Read : তৈলাক্ত ত্বকে ব্রণ দূর করার উপায় ,

Related Post

খুশির স্ট্যাটাস

200+ স্টাইলিশ খুশির স্ট্যাটাস | হাসি নিয়ে ক্যাপশন

খুশির স্ট্যাটাস | হাসি নিয়ে ক্যাপশন জীবনের সুন্দর খুশির মুহূর্ত আমরা সবাই বাঁধাই করে রাখতে চাই। আর এই খুশির মুহূর্তকে ধরে রাখার সবচেয়ে সহজ উপায়

Read More »
❤love status bangla | ভালোবাসার ছন্দ | রোমান্টিক ছন্দ | প্রেম ছন্দ স্ট্যাটাস❤

স্টাইলিশ ভালোবাসার ছন্দ | রোমান্টিক ছন্দ | Love Status Bangla

❤❤ভালোবাসার ছন্দ | ভালোবাসার ছন্দ রোমান্টিক | ভালোবাসার ছন্দ স্ট্যাটাস❤❤ ভালোবাসা হলো এক অন্যরকম অনুভূতির নাম, যা শুধুমাত্র কাউকে ভালবাসলেই অনুভব করা যায়। আমরা বিভিন্নভাবে

Read More »
মন খারাপের স্ট্যাটাস

মন খারাপের স্ট্যাটাস, উক্তি, ছন্দ, ক্যাপশন, কিছু কথা ও লেখা

মন খারাপের স্ট্যাটাস মন খারাপ – এই কষ্টের অনুভূতি কার না হয়? সবারই কখনো না কখনো সবারই মন খারাপ হয়। জীবনের ছোটোখাটো অঘটন থেকে শুরু

Read More »
রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের প্রেমের উক্তি

রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের প্রেমের উক্তি

রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের প্রেমের উক্তি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরকে বলা হয় বিশ্বকবি। তিনি ছিলেন একজন বিচক্ষণ ও গুনী লেখক। প্রেম চিরন্তন এবং সত্য। রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর বাঙালীর মনে প্রেমের

Read More »
ব্রেকআপ স্ট্যাটাস বাংলা

ব্রেকআপ স্ট্যাটাস বাংলা | Breakup Status Bangla

ব্রেকআপ স্ট্যাটাস বাংলা আপনি কি আপনার প্রিয়জনের সাথে সম্পর্ক থেকে বের হয়ে এসেছেন? আর সেটা আপনি কোন ব্রেকআপ স্ট্যাটাস বাংলা মাধ্যমে বোঝাতে চাচ্ছেন। তাহলে আপনি

Read More »

Leave a Comment

Table of Contents